MS Dhoni : ‘ক্যাপ্টেন কুল’এর সবসময় কুল থাকার আসল কারন কি, তা জানালেন ধোনি নিজেই 

0
25
MS Dhoni : MS Dhoni reveals why he never gets angry on the field:
MS Dhoni : MS Dhoni reveals why he never gets angry on the field: "I am also human but we always try to control our emotions"

ভারতীয় ক্রিকেট দলের প্রাক্তন অধিনায়ক ও উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান মহেন্দ্র সিং ধোনি’কে (MS Dhoni) ক্রিকেট প্রেমীরা খুব কম সময়েই রেগে যেতে দেখেছেন। মাঠে হোক বা মাঠের বাইরে, এমএস ধোনি’কে সবসময় শান্ত দেখায়। এই কারণে তাকে ‘ক্যাপ্টেন কুল’ও বলা হয়ে থাকে। কারণ তাকে প্রতিটি পরিস্থিতি’তে শান্ত মনে হয়। তবে সম্প্রতি তিনি জানিয়েছেন যে কেনও তিনি রাগ করেন না এবং কেনও তিনি মাঠে শান্ত থাকেন।

এমএস ধোনি (MS Dhoni) বলেছেন যে তিনি সবসময় তার আবেগ নিয়ন্ত্রণ করার চেষ্টা করেন, কারণ তিনিও একজন মানুষ। ‘ক্যাপ্টেন কুল’ ধোনি যখন লাইভফাস্টে শ্রোতা’দের জিজ্ঞেস করেছিলেন, ‘আপনারা ক’জন মনে করেন যে আপনার বস শান্ত ?’ এই প্রশ্নের জবাবে কয়েকটি হাত উঠেছিল। এটা দেখে ধোনি কটাক্ষ করেছিলেন, ‘হয় তারা ব্রাউনি পয়েন্ট তৈরি করতে চায় বা তারা নিজেরাই মালিক।’

এরপর ধোনি (MS Dhoni) আরও বলেছিলেন,

“সত্যি বলতে, আমরা যখন মাঠে থাকি কেউই কোনও ভুল করতে চাই না। সে ফিল্ডিং মিস করা, ক্যাচ ফেলাই হোক বা অন্য যে কোনও ধরনের ভুল। আমি সব সময়ই এটা উপলব্ধি করার চেষ্টা করি, কী কারণে কোনও ক্রিকেটার ফিল্ডিং মিস করলেন বা ক্যাচ ফেললেন? রেগে গিয়ে কোনও লাভ হয় না। গ্যালারিতে বসে হাজার চল্লিশেক দর্শক খেলা দেখছেন, বিভিন্ন মাধ্যমে কয়েক কোটি মানুষ খেলা দেখে থাকেন। আমার কাছে গুরুত্বপূর্ণ ব্যাপারটি হলো, খারাপ ফিল্ডিংয়ের কারণ।

আরও পড়ুন : Lionel Messi : বক্সের বাইরে থেকে দর্শনীয় গোল মেসির, প্রীতি ম‍্যাচে জিতলো আর্জেন্টিনা, দেখুন ভিডিও 

যদি কেউ খেলার প্রতি ১০০ শতাংশ মনোযোগী হন, তারপরও যদি কেউ মিস করেন তাহলে সেটা আমার কাছে সমস্যা নয়। কেন না, আমি নজর রাখি ওই ক্রিকেটারই ফিল্ডিং অনুশীলনের সময় কটি ক্যাচ ধরছেন। কোথাও কোনও সমস্যা থাকলে সেই খামতি মেটাতে তিনি সচেষ্ট কিনা সেটাও বিবেচনা করা হয়। ফলে শুধু ক্যাচ ফেলা নিয়ে না ভেবে, সামগ্রিকভাবে বিষয়টি আমি দেখে থাকি। কোনও ক্যাচ পড়ার জন্য আমরা হেরেও যেতে পারি। তবে সেখানে নিজের সেরাটা দেওয়ার ক্ষেত্রে খামতি থাকছে না সেটাই আমার কাছে বেশি গুরুত্বপূর্ণ।”

এরপর ধোনি (MS Dhoni) আরও বলেন,

“আমরা সকলেই মানুষ। সবার মতো আমারও একই অনুভূতি হয়। সাধারণ মানুষ যখন নিজেদের মধ্যে খেলেন তখন খারাপ কিছু হলে খারাপই লাগে। আমরা দেশের প্রতিনিধিত্ব করি। ফলে আমাদেরও খারাপ’ই লাগে। কিন্তু আবেগ’কে নিয়ন্ত্রণে রাখার চেষ্টা করে থাকি আমরা। মাঠের বাইরে বসে বলা সহজ, এটা এমনভাবে খেলা উচিত ছিল। কিন্তু মনে রাখতে হবে, মাঠে নেমে তা করে দেখানো সহজ নয়। আমরাও যেমন দেশের প্রতিনিধিত্ব করছি, প্রতিপক্ষ দল’ও সেটাই করছে। সেই দলের ক্রিকেটার’রাও ভালো খেলার লক্ষ্য নিয়েই নামেন। ফলে ওঠা-পড়াও থাকবেই।”

আরও পড়ুন : India vs Australia 2022 : নাগপুরের জয় ভারতের কোনও কম্মে লাগবেনা, দাবী প্রাক্তন ওপেনারের